আজ- ১৪ই অক্টোবর, ২০১৯ ইং, ৩০শে আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ মঙ্গলবার  রাত ৪:০৬

বিসর্জনের মধ্য দিয়ে দেবী দুর্গার অশ্রুসিক্ত বিদায়

 

দৃষ্টি নিউজ:

বিসর্জনের মধ্য দিয়ে অশ্রুসিক্ত নয়নে দেবী দুর্গাকে কৈলাসে বিদায় জানায় ভক্ত-অনুরক্তরা। এভাবেই মঙ্গলবার(৮ অক্টোবর) সন্ধ্যায় সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা শেষ হয়।

টাঙ্গাইল পৌর এলাকায় পদ্মমণি পুকুরে মঙ্গলবার সন্ধ্যার দিকে প্রতিমা বিসর্জনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। এরপর শহরের বিভিন্ন পুকুরে প্রত্যেক ওয়ার্ড থেকে ঢাকঢোল, কাঁসর, শঙ্খ বাজিয়ে আনন্দ- উল্লাসে প্রতিমা বিসর্জন দেন সনাতন ধর্মাবলম্বীরা।এছাড়া টাঙ্গাইল জেলার সকল উপজেলার মণ্ডপে ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী বিভিন্ন নদী, খাল, বিল, পুকুর ও জলাশয়ে প্রতিমা বিসর্জন দেয়া হয়েছে। এসময় হাজারো মানুষের সমাগম ঘটে প্রতিমা বিসর্জন স্থলে।

এরআগে মঙ্গলবার বিকালে বিভিন্ন মণ্ডপ থেকে ট্রাক ও ভ্যানে তুলে শোভাযাত্রা সহকারে প্রতিমা বিসর্জনের উদ্দেশে নিয়ে যাওয়া হয়। শঙ্খ-উলুধ্বনি আর ঢাক-ঢোলের তালে তালে নেচে- গেয়ে চোখের জলে ভক্তরা দেবী দুর্গাকে বিদায় জানান। এ সময় দেবীকে শেষ দর্শন করতে হাজারো মানুষের ঢল নামে।
ষষ্ঠীর মধ্যে দিয়ে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের পাঁচ দিনের দুর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। এরপর মহাসপ্তমী, মহাষ্টমী ও মহানবমীতে হিন্দু সম্প্রদায়ের হাজার হাজার নারী-পুরুষ ধর্মীয় নানা আচারানুষ্ঠান পালন করেন।

চলতি বছর জেলার ১২টি উপজেলায় এক হাজার ২১৪টি মণ্ডপে দুর্গাপুজা অনুষ্ঠিত হয়। পুজা মন্ডপগুলোতে সরকারের পক্ষ থেকে মণ্ডপে মণ্ডপে অনুদান দেয়া হয়। দুর্গাপুজাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা নেয়ায় কোন প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই দুর্গোৎসবের সফল সাপ্তি ঘটেছে। বিজয়া দশমীর দিনে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে তাঁরা এর আনুষ্ঠানিকতা শেষ করেন।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করেছে

 
 
 

0 Comments

You can be the first one to leave a comment.

 
 

Leave a Comment

 




 
 

 
 
 

ব্যবস্থাপনা পরিচালক : মু. জোবায়েদ মল্লিক বুলবুল
আশ্রম মার্কেট ২য় তলা, জেলা সদর রোড, বটতলা, টাঙ্গাইল-১৯০০।
ইমেইল: dristytv@gmail.com, info@dristy.tv, editor@dristy.tv
মোবাইল: +৮৮০১৭১৮-০৬৭২৬৩, +৮৮০১৬১০-৭৭৭০৫৩

shopno