আজ- ২৩শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৯ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ রবিবার  রাত ১১:৪২

প্রচারণায় সরগরম ভোটের মাঠ

 

দৃষ্টি নিউজ:

টাঙ্গাইল-৭ (মির্জাপুর) আসনের উপ-নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ও তাদের কর্মী-সমর্থকদের পদচারণায় ভোটের মাঠ সরগরম হয়ে ওঠেছে। এ আসনে আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি, ওয়ার্কার্স পাটি, বিজিপি পার্টি ও স্বতন্ত্র পাঁচ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

কাকডাকা ভোর থেকে গভীর রাত পর্যন্ত প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ও তাদের কর্মী-সমর্থকরা দলীয় কর্মীসভা ও নির্বাচনী পথসভার পাশাপাশি পাড়ায় পাড়ায় ভোট প্রার্থনা করছেন।

জানাগেছে, এ আসনের উপ-নির্বাচনে আওয়ামীলীগ সমর্থিত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী খান আহমেদ শুভ ও জাতীয় পার্টির প্রার্থী পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য লাঙল প্রতীকের জহিরুল ইসলাম জহিরের মধ্যে মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতা হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

ইতোমধ্যে তারা দুজনেই দলীয় মহিলা কর্মীদেরকে এলাকা ভিত্তিক গ্রুপে বিভক্ত করে পাড়া-মহল্লা ও গ্রামে গ্রামে ভোট চাইতে মাঠে নামিয়ে দিয়েছেন। এছাড়া পোস্টার, ব্যানার ও হ্যান্ডবিলে নির্বাচনী এলাকার গুরুত্বপূর্ণ স্থান ছেয়ে গেছে।


প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীরা নির্বাচনী সভা ও কর্মী সমাবেশের মাধ্যমে সকল ভুল বোঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে কর্মীদের একযোগে দলীয় প্রার্থীর পক্ষে ভোটের মাঠে নামানোর প্রয়াস পাচ্ছেন।


আওয়ামীলীগ দলীয় প্রার্থী খান আহমেদ শুভর সমর্থনে জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আনিছুর রহমান সহ জেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ সহ সহযোগী এবং ভ্রাতৃপ্রতীম সংগঠনের নেতাকর্মীরা মাঠে নেমেছেন।

এছাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম সিরাজ, উপজেলা কৃষক লীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক ভিপি আবু সাঈদ, উপজেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক আমিনুর রহমান আকন্দ সহ উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা দিনরাত মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন।


জাতীয় পার্টির প্রার্থী দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য জহিরুল ইসলাম জহিরের সমর্থনে জেলা জাতীয় পার্টির নেতৃবৃন্দ ও উপজেলা জাতীয় পার্টির সহ-সভাপতি ছিবার উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেম, পৌর জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক আশরাফ উদ্দিন আহমেদ সহ উপজেলা জাতীয় পার্টির নেতৃবৃন্দ দলে দলে ভাগ হয়ে প্রতিদিন প্রচারণায় অংশ নিচ্ছেন।


মির্জাপুর পৌরসভা, মহেড়া, ফতেপুর, জামুর্কী, বানাইল, আনাইতারা, উয়ার্শী, ভাতগ্রাম, বহুরিয়া, গোড়াই, আজগানা, বাঁশতৈল, তরফপুর, ভাওড়া ও লতিফপুর ইউনিয়নের প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চল নেতাকর্মীদের পদচারণায় মুখর হয়ে ওঠেছে।


সংসদীয় আসন-১৩৬, টাঙ্গাইল-৭(মির্জাপুর) আসনের উপ-নির্বাচনে বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির প্রর্থী গোলাম নওজব চৌধুরী পাওয়ার (হাতুড়ি) বাংলাদেশ বিজিপি পার্টির প্রার্থী রূপা রায় চৌধুরী (ডাব) ও স্বতন্ত্র প্রার্থী নুরুল ইসলাম নুরু(মোটরগাড়ি) প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

আগামী ১৬ জানুয়ারি এ আসনে ভোটগ্রহন অনুষ্ঠিত হবে। এ আসনের উপ-নির্বাচনে শতভাগ ইভিএমে ভোটগ্রহন করা হবে। সকাল ৮টায় ভোটগ্রহন শুরু হয়ে একটানা বিকাল ৪টা পর্যন্ত চলবে। উপজেলার তিন লাখ ২২ হাজার ৬৭৪জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।


এদিকে, ভোটগ্রহন অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ করতে নির্বাচন কমিশন প্রার্থীদের সমন্বয়ে সভা-সমাবেশের পাশাপাশি ইভিএম পদ্ধতি প্রচলনে ভোটারদের সচেতন করার কাজ করে যাচ্ছে বলে সিনিয়র জেলা নির্বাচন অফিসার এএইচএম কামরুল হাসান নিশ্চিত করেছেন।


উল্লেখ্য, গত ১৬ নভেম্বর এ আসনের সংসদ সদস্য একাব্বর হোসেন চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। ৩০ নভেম্বর আসনটি শূন্য ঘোষণা করে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করেছে

 
 
 
 
 

ব্যবস্থাপনা পরিচালক : মু. জোবায়েদ মল্লিক বুলবুল
আশ্রম মার্কেট ২য় তলা, জেলা সদর রোড, বটতলা, টাঙ্গাইল-১৯০০।
ইমেইল: dristytv@gmail.com, info@dristy.tv, editor@dristy.tv
মোবাইল: +৮৮০১৭১৮-০৬৭২৬৩, +৮৮০১৬১০-৭৭৭০৫৩

shopno